ক্ষমতা আমি কখনই ছাড়বোনা

পুরোণো স্বৈরাচারের দিবস পালন করছি
যে নুর হোসেন মিলন ও
আরও অনে হত্যা করেছে
সেই স্বৈরাচার এখনও খেলছে
নিরাপদে দাবার শেষ চালটি হাতে নিয়ে

আপনারা কি মনে করেছেন

ফোরাউন,নমরুদ সাদ্দাদের

পতনের সাথে জগতের সকল

স্বৈরাচারের কবর হয়েছে

ওরাতো শয়তানের সন্তান।
চলমান স্বৈরাচার
যার সারা শরীরে গণতন্ত্রের নামাবলী
ভাষায় গণতন্ত্রের ফুল ফোটে
সকাল বিকাল
যিনি এই হিজাব পরেনতো
সেই কপালে তিলক দেন
যিনি ভিন দেশে গেলেই
উত্তরীয় পরে দিদি হয়ে যান
তিনিতো কয়েক মাসেই
হত্যা করেছেন কয়েকশ’ নিরী্হ নাগরিক
তিনি তবুও বলেন
আমি গনতন্ত্রের কন্যা
আমি গণতন্ত্রের জন্যে প্রাণ দিবো
গণতন্ত্রের জন্যেই প্রাণ নিবো
তবু আমি গণতন্ত্রকে
কিছুতেই ছাড়বোনা
আমার বাবাও ছাড়েননি।
ষোল কোটি মানুষের গণতন্ত্রের জন্যে
ক’জন মানুষ আর আমি হত্যা করেছি
আইউব ইয়াহিয়া এরশাদতো
সামরিক স্বৈরাচার
ওরাতো গণতন্ত্রের বিরুদ্ধে
আমার কাছে ভোট আছে
সংসদে সীট আছে
তাই পুরো রাস্ট্রটাই আমার সাথে আছে
আমিতো জোর করে ক্ষমতা নিইনি
জেনারেল মইনইতো আমার হাতে
গণতন্ত্রকে তুলে দিয়ে গেছে
কারণ আমিইতো একমাত্র
গণতন্ত্রের কন্যা
আমার অধিকার আছে
আমার হাতে রাষ্ট্র আছে
আছে পাইক পেয়াদা বরকন্দাজ
আছে গণতন্ত্রের মোহর লাগানো সনদ
আমিইতো দেশ ও দশের জন্যে
মানুষ হত্যা করতে পারি।
আপনারা কি দেখেন চোখ তুলে
গণতন্ত্রের আব্বাজান
গণতন্ত্রের আড্ডাখানা
কেমন কথায় মানুষ মারছে
আফগানিস্তান, ইরাক, সিরিয়া
সোমালিয়া আর ইয়েমেন আর লেবাননে।
আমিই এদেশে একমাত্র বিশ্বমাপের
গণতান্ত্রিক নেতা।
কই আপনারাতো ওবামাকে স্বৈরাচার বলেন না
আমাকে বুঝি নিজের মেয়ে বলে
পছন্দ হয়না
আপনারা যে যাই বলুন
যে নামেই ডাকুন
চিরস্থায়ী গণতন্ত্রের জন্যে
গণতান্ত্রিক বাংলাদেশের জন্যে
আমি কখনই ক্ষমতা ছাড়বোনা
দয়া করে আপনারা শুধু আমাকে
আইউব ইয়াহিয়া এরশাদ আর
মিশরের মোবারকের সাথে
তুলনা করবেন না
এতে গণতন্ত্রের মনে কষ্ট হয়
আমিও কষ্ট পাই
বলুন, আমিই এশিয়ার ওবামা।